শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম | শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স অনলাইন আবেদন - Time Of BD - Education Blog

হ্যাপি নিউ ইয়ার ২০২৩ ভিজিটর বন্ধুরা। দোয়া করি, এই বছরের প্রতিটি মুহুর্ত যেনো সকলের অনেক আনন্দে কাটে।

শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম | শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স অনলাইন আবেদন

     শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম

    শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম,শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স অনলাইন আবেদন

    আসসালামু আলাইকুম যারা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম অনলাইনে করতে চাচ্ছেন বা এ বিষয়ে জানতে ইচ্ছুক আজকে আপনাদের জানাবো শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম সম্পর্কে । আশা করি এই লেখাটি শেষ পর্যন্ত পড়লে শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম কিভাবে ডাউনলোড  করবেন তা বুঝতে পারবেন।

    শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম ডাউনলোড করতে এই ওয়েবসাইটে ক্লিক করতে হবে।http://www.brta.gov.bd। এই ওয়েবসাইটে যাওয়ার পর শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের  এর আবেদন ফরম শো করবে। সেখান থেকে শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম টি পেতে পারেন। 

    শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স অনলাইন আবেদন

    শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স-এর জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ অনলাইনে (bsp.brta.gov.bd)-এর মধ্যমে আবেদন করতে হবে। অনলাইন সিস্টেম থেকে তার লার্নার বা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স ইস্যু হবে এবং গ্রাহক সাথে সাথেই সিস্টেম থেকেই তার শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রিন্ট করে নিতে পারবেন। এরপর ২/৩ মাস প্রশিক্ষণ গ্রহণের পর তাকে নির্ধারিত তারিখ ও সময়ে নির্ধারিত কেন্দ্রে লিখিত, মৌখিক ও ফিল্ড টেস্ট-এ অংশ গ্রহণ করতে হবে। এসময় প্রার্থীকে প্রয়োজনীয় প্রমাণক, তার লার্নার বা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স (মূল কপি) ও লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য কলম সাথে আনতে হবে।

    লার্নার বা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স এর জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ

    ১। নির্ধারিত ফরমে আবেদন অনলাইনে আবেদন।

    ২।  আবেদনকারীর ছবি [ছবির সাইজ সর্বোচ্চ ১৫০ কেবি (৩০০ x ৩০০ পিক্সেল)]

    ৩।  রেজিষ্টার্ড ডাক্তার কর্তৃক মেডিকেল সার্টিফিকেট (সর্বোচ্চ ৬০০কে.বি)। 

    ৪।  জাতীয় পরিচয়পত্রের স্ক্যান কপি (সর্বোচ্চ ৬০০কে.বি)

    ৫।  ইউটিলিটি বিলের স্ক্যান কপি (সর্বোচ্চ ৬০০কে.বি), [ আবেদনকারীর বর্তমান ঠিকানা এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের ঠিকানা যদি ভিন্ন হয় তবে বর্তমান ঠিকানার ইউটিলিটি বিল সংযুক্ত করতে হবে ]

    ৬। অনলাইনে আবেদন দাখিলের সময় ভুয়া তথ্য প্রদান করা হলে তার লার্নার ড্রাইভিং লাইসেন্স ও স্মার্ট কার্ড ড্রাইভিং লাইসেন্স বাতিলসহ তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

    ৭। নির্ধারিত ফী, ১ ক্যাটাগরি-৩৪৫/-টাকা ও ২ ক্যাটাগরি-৫১৮/-টাকা অনলাইনে পরিশোধ।

    লিখিত, মৌখিক ও ফিল্ড টেস্ট পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর পুনরায় একটি নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও ফী প্রদান করে স্মার্টকার্ড ড্রাইভিং লাইসেন্স-এর জন্য সংশ্লিষ্ট সার্কেল অফিসে (BRTA) আবেদন করতে হবে। গ্রাহকের বায়োমেট্রিক্স (ডিজিটাল ছবি, ডিজিটাল স্বাক্ষর ও আঙ্গুলের ছাপ) 

    গ্রহণপূর্বক স্মার্ট কার্ড ইস্যু করা হয়। স্মার্ট কার্ড ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রন্টিং সম্পন্ন হলে গ্রাহককে এসএমএস এর মাধ্যমে তা গ্রহণের বিষয়টি জানিয়ে দেয়া হয়।

    Tags: শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য আবেদন ফরম,শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স অনলাইন আবেদন

    Next Post Previous Post
    No Comment
    Add Comment
    comment url

    অনলাইনে আমাদের ওয়েবসাইটে পোস্ট লিখে প্রতিদিন ১০০-২০০ টাকা ইনকাম করতে চাইলে এই পোস্টে কমেন্ট করুন। আমরা আপনায় কাজ ফ্রিতে শিখিয়ে কাজে জয়েন করে দিবো। অবশ্যই প্রতিদিনের কাজ প্রতিদিন শেষ করতে হবে। ধন্যবাদ